জাওয়াদ থেকে মুক্তি!তবে বঙ্গে ভারী বৃষ্টির সম্ভাবনা আগামী দুইদিন

103
- Advertisement -

জাওয়াদ
আলিপুর হাওয়া অফিস থেকে জানানো হয়েছে রাজ্যে ঘুর্নিঝড় জাওয়াদের কোনো প্রকার সম্ভাবনা নেই।জাওয়াদের প্রভাব ওড়িশার পুরীর দিকে পাড়ি দিচ্ছে।তবে তার আগেই শক্তিক্ষয় হবে এই ঘুর্নিঝড়ের।পশ্চিমবঙ্গে ঘুর্নিঝড় না থাকলেও শনিবার থেকেই ভারী বৃষ্টিপাতের সম্ভাবনা রয়েছে।ঘন্টায় ৪৫-৫০ কিমি বেগে বইবে বাতাস এমনটাই জানিয়েছে আবহাওয়া দপ্তর।

- Advertisement -

আলিপুর অফিসের পক্ষ থেকে জানানো হয়েছে, শনিবার থেকে রাজ্যে প্রবল বাতাসের সঙ্গে ভারী বৃষ্টি হবে যা চলবে আগামী সোমবার পর্যন্ত।  শনিবার দক্ষিণ ২৪ পরগনা এবং পূর্ব মেদিনীপুরে ভারী বৃষ্টি হবে।  রবিবার দুই মেদিনীপুর, দুই ২৪ পরগনা, পূর্ব বর্ধমান এবং হাওড়ায় ভারী বৃষ্টির সম্ভাবনা রয়েছে।  সোমবার ভাসতে পারে নদিয়া, মুর্শিদাবাদ ও মালদহ।  গভীর নিম্নচাপ ও জোয়ারের প্রভাবে উপকূলীয় অঞ্চলে জলোচ্ছ্বাস দেখা দিতে পারে।

রাজ্য সরকারের নির্দেশে  শনিবার দক্ষিণ ২৪ পরগণা এবং পূর্ব মেদিনীপুর থেকে কয়েক হাজার লোককে সরিয়ে নেওয়া হয়েছে।  প্রশাসনের তরফে জানানো হয়েছে,দুই জেলার উপকূলীয় এলাকা থেকে ১১ হাজার বাসিন্দাকে সরিয়ে নেওয়া হয়েছে।  কাকদ্বীপ, দীঘা, শঙ্করপুর সহ বিভিন্ন উপকূলীয় এলাকার জেলেরা ইতিমধ্যেই গভীর সমুদ্র থেকে ফিরে এসেছেন।

উদ্ধারকারীরা দিঘা, শঙ্করপুর, তাজপুর এবং বকখালির সমুদ্র সৈকত থেকে সমস্ত পর্যটকদের অন্যত্র স্থানান্তর করে নিচ্ছে।  ন্যাশনাল ডিজাস্টার রেসপন্স ফোর্সের ১৯ টি দল বাংলার বিভিন্ন উপকূলীয় এলাকায় মোতায়েন করা হয়েছে।আবহাওয়া দপ্তর থেকে প্রাপ্ত সর্বশেষ প্রাপ্ত তথ্য থেকে জানা গিয়েছে জাওয়াদ বিশাখাপত্তনম থেকে ২০০ কিলোমিটার, ওড়িশার গোপালপুর থেকে ৩১০ কিমি,পুরী থেকে ৩৬০ কিমি  এবং পারাদ্বীপ থেকে ৪৬০ কিমি দূরে অবস্থিত।

আরোও পড়ুন :