একটুতেই বিপদ! হেলমেট ভেবে মাথায় কুকার রাজকোটের শিশুর, পড়ুন বিস্তারিত

267
- Advertisement -

Image Source : Google

ছোটবেলায় না বুঝেই আমরা এমন কিছু কাজ করে ফেলি যার মাশুল দিতে হয় আমাদের পরিবারকে। শিশুমন অবুঝেই ঘটিয়ে ফেলে নানা অবাস্তব কান্ড। ঠিক যেমনটা ঘটিয়ে ফেলেছিল রাজকোটের প্রিয়াংশী বালা।

- Advertisement -

প্রিয়াংশীর বয়স মাত্র এক বছর। বাবাকে হেলমেট পড়তে দেখে তার ও শখ হয় সে ও হেলমেট পড়বে। যেমন ভাবা তেমন কাজ। রান্নাঘরে প্রেসার কুকার নিয়ে এসে সে গলিয়ে নেয় মাথায়। ব্যস তাতেই বিপত্তি। কিছুতেই তার মাথা থেকে হেলমেটটি বের করা সম্ভব হয়না। বাড়ির লোকজন চেষ্টা করতে গিয়েও অসফল হয়। ফলে বাধ্য হয়েই তারা প্রিয়াংশী কে নিয়ে যায় স্যার টি আর হাসপাতালে।

হাসপাতালের তাবড় তাবড় অর্থপেডিক থেকে শুরু করে পেড্রিয়াটিক ডাক্তাররা অনেক ভাবার পরে অবশেষে নিয়ে আসেন এমন একজন ব্যক্তিকে যিনি বাসনপত্র নিয়ে কাজ করেন। তার পরেই কুকারটিকে কেটে বের করা হয় প্রিয়াংশীর মাথা থেকে।

স্যার টি আর হাসপাতালের প্রশাসক হার্দিক গাথানির কথায়, “শেষ পর্যন্ত আমাদের ডেকে পাঠাতে হয় এমন এক ব্যক্তিকে, যিনি বাসনপত্র নিয়ে কাজ করেন। তিনি হাসপাতালে আসেন। আর তারপরেই শিশুটির মাথা থেকে কেটে বের করেন ওই কুকার। তবে ওই শিশুর বাড়ির লোকেরা জানিয়েছেন যে, তাঁরাও বাচ্চাটির মাথা থেকে প্রেসার কুকার বের করার অনেক চেষ্টা করেন। কিন্তু তাতে আখেরে লাভের লাভ কিছুই হয়নি। বরং হিতের বিপরীত হয়ে চোট পায় ছোট্ট শিশুটি।”

আরোও পড়ুন :